গবাদিপশু নিয়ে সংঘর্ষ মিমাংসা করলেন চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী শাহিদুর রহমান সন্টু

কুমড়াবাড়িয়া ইউনিয়নে গবাদিপশু নিয়ে সংঘর্ষ মারামারি উঠান বৈঠকে মিমাংসা করলেন চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী শাহিদুর রহমান সন্টু। ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহ সদর উপজেলার ৫নং কুমড়াবাড়িয়া ইউনিয়নের অাব্দালপুর ও কুমড়াবাড়িয়া গ্রামের তৈয়ব অালী এবং অানিচুর রহমানের মধ্য গরু নিয়ে বাক বিতন্ডের এক পর্যায়ে উভয় পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষে উভয় পক্ষের কয়েকজন হতাহত হয়। দু’পক্ষের মধ্য পুনরায় সংঘর্ষ বাধার সম্ভাবনা দেখা দিলে স্হানীয় প্রশাসন পরিস্হিতি নিয়ন্ত্রণে এনে উভয় পক্ষকে শান্ত থাকার নির্দেশ দেন। বিষয়টি নিয়ে উভয় পক্ষই নিরসনের জন্য শাহিদুর রহমান সন্টুর শরণাপন্ন হলে,তিনি স্হানীয় মুরব্বি ওগ্রাম্য মাতব্বরদের নিয়ে উঠান বৈঠকের অাহব্বান করেন।তারই ধারাবাহিকতায় শুক্রবার জুম্মার নামাজের পর দুই পাড়ার মুরব্বি হাজীসাহেবগন,বাদীপক্ষ, বিবদীপক্ষ এবংগ্রামবাসীর উপস্হিতিতে অাব্দালপুর মাদ্রাসা প্রাঙ্গনে উঠান বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।দীর্ঘ সময়ব্যাপী চলা বৈঠকে উভয় পক্ষের শুনানি, এবং স্বাক্ষীদের স্বাক্ষ্য গ্রহন করা হয়।এসময় স্হানীয় মাতব্বরগন সমাজে শান্তিপূর্ণভাবে বসবাস করার জন্য বিভিন্ন মূল্যবান বক্তব্য উপস্হাপন করেন।সম্মানিত সকল বক্তার বক্তব্যে মূল্যায়ন তথ্য উপাত্তের ভিত্তিতে সার্বিক বিষয় বিবেচনায় এনে সভায় সমাজে শান্তিপূর্ণভাবে বসবাস করার ক্ষেত্রে বিভিন্ন সচেতনতামূলক বত্তব্য উপস্থাপন করেন কুমড়াবাড়িয়া ইউনিয়নের কৃতি সন্তান তারুন্যর অহংকার গর্বিত অাওয়ামী পরিবারে উত্তরসূরী মুক্তিযুদ্ধের চেতনার পক্ষের সমর্থক, চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী মোঃ শাহিদুর রহমান (সন্টু)।বৈঠকে সিদ্ধান্ত গৃহীত হয় যে উভয় পক্ষ শান্তি, সাম্য ও ভ্রাতৃত্বের সাথে বসবাস করবে।কোন অরাজকতা এবং বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করবেন।এবং উভয় পক্ষ উঠান বৈঠকের সিদ্ধান্ত মেনে নিয়ে শান্তিতে একসাথে বসবাস করতে অঙ্গীকারবদ্ধ হন।