বগুড়ার শাজাহানপুরে ব্যাংক থেকে ৬ লাখ টাকা ছিনতাই

বগুড়া প্রতিনিধি

বগুড়ার শাজাহানপুরে ক্ষুদ্র ফুলকোট রাজারামপুর পানি ব্যবস্থাপনা সমবায় সমিতির প্রায় ৬ লাখ টাকা ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে থানা পুলিশ। এ ঘটনায় রবিবার রাতে শাজাহানপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

সমিতির সাধারণ সম্পাদক আলহাজ মোজাম্মেল হক দেওয়ান জানান, উপজেলার আমরুল ইউনিয়নে ক্ষুদ্রফুলকোট রাজারামপুর পানি ব্যবস্থাপনা সমবায় সমিতি বাঁধ ও খাল পুনঃখনন প্রকল্পের অধীনে ৭৬ লাখ টাকা বরাদ্দে কাজ করেছে। প্রকল্পের কাজ শেষ হলেও এখন পর্যন্ত বরাদ্দের সব টাকা পাওয়া যায়নি।

রবিবার বিকেলে ব্যাংক থেকে টাকা তুলে পাওনা পরিশোধের জন্য পাওনাদারদেরকে ডাকা হয়। সমিতির সভাপতি সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান সরকার বাদলসহ সমিতির নেতারা অগ্রণী ব্যাংক বি-ব্লক শাখায় এসে প্রকল্পের ৫ লাখ ৯৫ হাজার টাকা উত্তোলন করে ব্যাংক থেকে বের হন। এ সময় পাওনাদার আবুল কালাম ও তার দুই ছেলে ফাহিম, মেশরাত, ফাহিমের সহযোগী মল্লিক, রিফাত সহ বেশ কয়েকজন এসে তার হাতে থাকা টাকার ব্যাগ ও ব্যাগে থাকা প্রকল্পের কাজের হিসাবপত্র এবং স্বাক্ষর করা ব্যাংকের ৩টি ব্লাংক চেকসহ ব্যাগ ছিনিয়ে নিয়ে যায়।

ছিনতাইকারীরা ছাত্রলীগ করে। মেশরাত উপজেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি। ছাত্রলীগ নেতা উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি রাকিবুল ইসলাম রঞ্জুর হুকুমে তারা এই ছিনতাই করেছে। এ ঘটনায় থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

সমিতির সভাপতি সরকার বাদল জানান, পাওনাদার আবুল কালাম মাস্টার ৯৭ হাজার টাকা পাবেন। টাকা দেওয়ার জন্য পাওনাদারদেরকে ডাকা হয়েছে। এ বিষয়ে অভিযুক্তদের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তাদের ফোন বন্ধ পাওয়া গেছে।

শাজাহানপুর থানার ওসি আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, পাওনা টাকা নিয়ে তাদের মধ্যে দ্বন্দ্ব রয়েছে। তবে এভাবে টাকা কেড়ে নেওয়া ঠিক হয়নি। টাকা ও কাগজপত্র উদ্ধারের পাশাপাশি অভিযোগ তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।