শৈলকুপায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে যুবককে পিটিয়ে ও কুপিয়ে হত্যা

আব্দুর  রহিম ঝিনাইদহ

ঝিনাইদহের শৈলকুপায় সামাজিক আধিপত্য বিস্তার নিয়ে দ্বন্দ্বে কল্লোল হোসেন (৩২) নামে এক যুবককে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে ও ধারাল অস্ত্র নিয়ে কুপিয়ে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষরা। শনিবার (৮ জানুয়ারি) দুপুর সাড়ে ১২টার উপজেলার দিকে বগুড়া ইউনিয়নের আওধা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত কল্লোল ওই ইউনিয়নের বারইহুদা গ্রামের আকবর খন্দকারের ছেলে।

নিহতের প্রতিবেশী রফিক হোসেন জানান, সামাজিক আধিপত্য বিস্তার নিয়ে বগুড়া গ্রামের আনু বিশ্বাস ও মোকা বিশ্বাসের সমর্থকদের মাঝে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল।

এর জের ধরে শনিবার দুপুরে মাঠে পেঁয়াজ লাগানো অবস্থায় আনু বিশ্বাসের সমর্থক কল্লোল হোসেনকে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে ও ধারাল অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে প্রতিপক্ষরা। সেখান থেকে তাকে উদ্ধার করে শৈলকুপা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসক কল্লোলকে মৃত ঘোষণা করেন।

শৈলকুপা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিক্যাল অফিসার শাহনেওয়াজ ইবনে কাশেম বলেন, ‘ছেলেটি হাসপাতালে আসার আগেই মারা গেছে। তার শরীরে একাধিক আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি, অতিরিক্ত রক্তক্ষরণের কারণেই তার মৃত্যু হয়েছে।’

শৈলকুপা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রফিকুল ইসলাম জানান, একটি ঘটনা ঘটেছে। এরপর থেকে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। সংঘর্ষ এড়াতে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এ ঘটনার সাথে যারা জড়িত তাদের গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।